Tuesday , October 27 2020
Breaking News
Home / Uncategorized / বয়সভেদে নারীদের সব ধরনের চাওয়া-পাওয়া যেভাবে বদলে যায়..

বয়সভেদে নারীদের সব ধরনের চাওয়া-পাওয়া যেভাবে বদলে যায়..

বয়সভেদে নারীদের সব ধরনের চাওয়া-পাওয়া যেভাবে বদলে যায়.. – হেডলাইনে নারী শব্দের উল্লেখ থাকলেও, এখানে কিন্তু প্রথমে টিনএজ মেয়েদের কথা বলব। মেয়েরা, তোমরা কিন্তু ভ্রু কোঁচকাবে না। তোমাদের যাদের বয়স ১৩ থেকে ১৯ এর মধ্যে, তাঁদের চাওয়া পাওয়া বাস

করে কিন্তু এক বড়সড় স্বপ্নের দেশে। অনন্ত চাওয়া, একেক জনের ক্ষেত্রে একেক রকম। শুরু করলে শেষ করা সম্ভব হবে না। তাই একটু এগিয়ে যাচ্ছি।

1. বয়স যখন ; ২০-২৯ প্রথম ব্যাপার তাঁকে( পুরুষটিকে ) সুদর্শন হতে হবে। মুগ্ধ শ্রোতা হতে হবে ১০০ ভাগ। ফ্যাশন সচেতন হওয়া জরুরী। রোমান্টিক হতেই হবে, না হলে চলবে না। শিল্পানুরাগী না হলেও ধারনা থাকতে হবে। সেন্স অব হিউমার থাকতে হবে প্রবল। আর্থিক ভাবে সচ্চল পরিবারের ছেলে হতে হবে, যাতে বায়না করলেই তা হাজির হয়ে যাবে এক মুহুর্তে। রোমান্সের জন্য জিম করা ফিগার থাকা প্রয়োজন, হিরো হিরো ভাব থাকতে হবে।

2. বয়স যখন ; ৩০-৩৯ ভাল ব্যাংক ব্যালান্স থাকা জরুরী। কথা বলার থেকে শুনবে বেশি। রান্না খেয়ে প্রশংসা করতে হবে (অখাদ্য হলেও)। কাজ সবাই করে , ওটার বাহানা দেওয়া চলবে না। ম্যানার জানতে হবে। জন্মদিন এবং অ্যানিভার্সারি ভোলা চলবে না।

3. বয়স যখন ; ৪০-৪৯- নোংরা থাকা চলবে না, পরিষ্কার পরিছন্ন থাকাতে হবে। টয়লেট সীট নামিয়ে আসতে হবে। অন্তত উইক-এন্ডে সেভ করতে হবে। সংসারের খরচের টাকাটা যেন ঠিকমত আয় করতে পারে। স্ত্রীর কথা শুনে সব সময়”হাঁ”সূচক মাথা নাড়তে হবে। এমন একটা শাট পরতে হবে যেটা পেট (ভুরি) ঢেকে রাখতে সক্ষম।

4. বয়স যখন ; ৫০-৫৯- নাক ও কানের চুল নিয়মিত পরিস্কার করতে হবে। পরিস্কার মোজা ও আন্ডারওয়্যার পরতে হবে। মাঝে মধ্যে সেভ করা জরুরী। কথা শুনতে শুনতে ঘুমিয়ে পড়া চলবে না। নাক ডাকা চলবে না। বেশী বেশী ধার না করাই ভাল। সপ্তাহে একদিন সঙ্গে বসে বাইরে গিয়ে খাওয়ার মতো ইচ্ছে থাকতে হবে।

5. বয়স যখনঃ ৬০-৬৯- ঘুমের সময় নাট ডাকার শব্দ একটু কম হতে হবে। হাসার সময় বুঝতে হবে কেন সে হাসছে। দাঁত (কৃত্রিম) কোথায় রেখেছেমনে রাখতে হবে। খাওয়া নিয়ে য্ন্ত্রনা করা চলবে না। টাকা-পয়সার চিন্তা বাদ দিয়ে বউয়ের উপর ভার ছেড়ে দিতে হবে। ছোট বাচ্চাদের ভয়ের কারন হওয়া চলবে না।

6. বয়স যখন ; ৭০-৭৯- টয়লেট যেন টয়লেটে হয় সেটা মনে রাখতে হবে। শ্বাস নেওয়ার মত শারীরিক শক্তি থাকতে হবে। মরার আগে বেশী খরচের অছিয়ত করে যাওয়া চলবে না। মরার আগেই সব সম্পত্তি চুলচেরা হিসাব করে ভাগ করে দিতে হবে।

About Dolon khan

Check Also

শীতে পায়ের গোড়ালি ফাটার কারণ এবং করণীয়

শীতকালে বাতাসে আর্দ্রতা কমে যায়। ফলে ত্বক শুষ্ক হয়ে পড়ে। ত্বক ক্রমে লাবণ্য হারায়। শীতকালে ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x

You cannot copy content of this page