Thursday , April 22 2021
Breaking News
Home / Education / ছয়বার বিসিএস দিয়ে স্ত্রীর সঙ্গে প্রশাসন ক্যাডার

ছয়বার বিসিএস দিয়ে স্ত্রীর সঙ্গে প্রশাসন ক্যাডার

সদ্য ঘোষিত ৩৮তম বিসিএসের চূড়ান্ত ফলাফলে প্রশাসন ক্যাডারে সুপারিশপ্রাপ্ত হয়েছেন মোহাম্মদ সাদাত হোসেন ও নুর পেয়ারা বেগম নীলু। তারা দুজন সর্ম্পকে স্বামী-স্ত্রী, দুজনই চট্টগ্রামের বাঁশখালী উপজেলার সন্তান। এই মেধাবী দম্পতির অসামান্য সাফল্যে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বেশ সাড়া ফেলছে। জানা গেছে, সাদাত হোসেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইন্টারন্যাশনাল বিজনেস থেকে পড়াশুনা করে বর্তমানে বিআরটিএ চট্টগ্রাম অঞ্চলের সহকারী পরিচালক হিসেবে কর্মরত

আছেন। আর নুর পেয়ারা বেগম নীলু চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় থেকে এপ্লাইড ফিজিক্স থেকে পড়াশুনা করে বর্তমানে ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংকে কর্মরত আছেন। গত বছর তারা বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন, তাদের একটি সন্তান রয়েছে। প্রশাসন ক্যাডারে মেধা তালিকায় ১২৩তম স্থান অধিকার করা সাদাত হোসেন বাঁশখালী পল্লী উন্নয়ন উচ্চ বিদ্যালয় থেকে ২০০৪ সালে এসএসসি, চট্টগ্রামের মহসিন কলেজ থেকে এইচএসসি ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতক ও স্নাতকোত্তর ডিগ্রী অর্জন করেন।

তিনি ইসলামী ব্যাংকের সিনিয়র অফিসার হিসেবে কর্মজীবন শুরু করেন বর্তমান বিআরটিএ চট্টগ্রাম অঞ্চলের সহকারী পরিচালক হিসেবে কর্মরত আছেন।প্রশাসন ক্যাডারে মেধা তালিকায় ১৫তম নুর পেয়ারা বেগম নীলু সাধনপুর বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় থেকে ২০০৬ সালে এসএসসি, ওমরগনি এমইএস কলেজ থেকে এইচএসসি ও চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতক ও স্নাতকোত্তর ডিগ্রী অর্জন করেন। তিনি বর্তমানে ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংকে কর্মরত আছেন। নিজেদের সফলতার গল্প

জানতে চাইলে সাদাত হোসেন বলেন, স্ত্রী ও আমি দুজনেই ৩৮ বিসিএসে প্রশাসন ক্যাডারে সুপারিশপ্রাপ্ত হলাম। এটা আমার ৬ষ্ঠ তম বিসিএস ছিলো, সেই ৩৩তম থেকে আমি স্বপ্নের পেছনে লেগেছিলাম, সকল শুভাকাঙ্ক্ষীদের প্রতি কৃতজ্ঞতা ও ভালবাসা।প্রসঙ্গত, আজ মঙ্গলবার বিকেলে ৩৮তম বিসিএস পরীক্ষার চূড়ান্ত ফলাফল প্রকাশ করে সরকারি কর্ম কমিশন (পিএসসি)। এতে ২ হাজার ২০৪ জন প্রার্থীকে ক্যাডার পদের জন্য সুপারিশ করা হয়েছে। এছাড়া নন-ক্যাডারে আরও ৬ হাজার ১৭৩ জন প্রার্থী উত্তীর্ণ হয়েছে।

About khan

Check Also

ফজরের নামাজের পর কোরআন তেলাওয়াত করে মেডিকেলের পড়া শুরু করতেন মুনমুন

এমবিবিএস ২০২০-২১ শিক্ষাবর্ষে ভর্তি পরীক্ষায় প্রথম স্থান অর্জন করেছেন মিশরী মুনমুন। তিনি পাবনা মেডিকেল কলেজ ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *