Monday , June 14 2021
Breaking News
Home / Exception / ঘর ও সমাজ বহিস্কৃত জয়িতা মন্ডল, আজ ভারতের প্রথম কিন্নর বিচারপতি

ঘর ও সমাজ বহিস্কৃত জয়িতা মন্ডল, আজ ভারতের প্রথম কিন্নর বিচারপতি

আমরা সকলেই জানি যে আমাদের সমাজে হিজড়াদের একটি অবহেলিত এবং খারাপ দৃষ্টিভঙ্গিতে দেখা হয়। যদি কোনো ঘরে হিজরা জন্ম গ্রহণ করে তবে তাকে অনেক বাধা বিপত্তির সম্মুখীন হতে হয়। নপুংসক রা যেই বাধা-বিপত্তির মধ্যে দিয়ে যায় তা আমরা ধারণা করতে পারবোনা।

তা সত্ত্বেও, আমাদের দেশে এমন নপুংসকরাও আছেন যারা দেশ ও সমাজে আলাদা পরিচয় তৈরি করেছেন এবং নপুংসক দের জীবনে এগিয়ে যাওয়ার দিকনির্দেশনা দিয়েছেন, তারা তাদের সামনে উদাহরণ হিসাবে দাঁড়িয়েছিলেন যে, নপুংসকও একজন সাধারণ মানুষ।

তাদেরও জীবন বেঁচে থাকার এবং শিক্ষা গ্ৰহনের অধিকার রয়েছে এবং তারাও জীবনে সফল ব্যক্তি হতে পারে। আমরা এমনই এক নপুংসকে নিয়ে কথা বলতে চলেছি, আমরা জয়িতা মন্ডল এর কথা বলছি। যিনি দেশের প্রথম নপুংসক বিচারক হয়েছেন। তবে তাকেও সমস্ত বাধার সম্মুখীন হতে হয়েছে এবং তিনি শেষমেষ সাফল্য পেয়েছেন।

এই গল্পটি একজন সাধারন নপুংসক থেকে এক বিচারক হয়ে ওঠার। জয়িতা মন্ডল পশ্চিমবঙ্গের বাসিন্দা এবং তিনি দেশের প্রথম (নপুংসক) বিচারক উপাধি পেয়েছেন। জয়িতা তার জীবনে কখনো হার মানেনি এবং তার জন্য তিনি আজ একজন সফল মানুষ হয়ে উঠতে পেরেছেন নিজের জীবনে।

তিনি এখনো অনেক সমাজ সেবামূলক কাজ করেন যেমন বৃদ্ধাশ্রম পরিচালনা করেন আবার রেড লাইট এরিয়ার পরিবারগুলিকে ও একটি ভালো জীবন দেওয়ার চেষ্টা করছেন তিনি। তিনি মধ্যপ্রদেশের বাণিজ্যিক শহর নামে পরিচিত ইন্দোর শহরে ট্রেডেক্স আয়োজিত একটি অনুষ্ঠানে অংশ নিতে এসেছিলেন।

তারপরে তিনি কিন্নার সমাজ এবং রেড লাইট অঞ্চলে বসবাসকারী পরিবারগুলিকে যে সমস্যার মুখোমুখি হতে হয় সেগুলি নিয়ে গণমাধ্যমের সাথে কথা বলেছিলেন এবং তিনি যখন

রেলওয়ে স্টেশনগুলিতে রাত কাটাতেন তখন তার জীবনের কঠিন সময়গুলি সম্পর্কেও বলেছিলেন। তিনি 8 জুলাই 2017 তে লোক আদালতে বিচারক হিসাবে নিযুক্ত হয়েছিলেন এবং তাঁর নাম চিরকালের জন্য ইতিহাসের পাতায় লিপিবদ্ধ হয়েছে।।

About khan

Check Also

গরুর পু-রু-ষা-ঙ্গ ধরে ঝুলছে ছোট্ট বাঁদর, অনেক চেষ্টাতেও গরু সরাতে পারলোনা বাঁদরকে, ভাইরাল ভিডিও!

সো’শ্যাল মিডিয়ায় আমরা নানান ধরনের ভা’ইরাল ভিডিও দেখতে পাই যেই ভিডিওগুলি আ’মাদেরকে অ’ত্যন্ত আনন্দ দান ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *